কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ-কুমেক

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ-কুমেক- চট্টগ্রাম বিভাগের কুমিল্লা জেলায় অবস্থিত একটি সরকারি মেডিকেল কলেজ । কুমিল্লা মেডিকেল ২৮-মে ১৯৭৯ সালে তৎকালীন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান এর সময়ে প্রতিষ্ঠিত হয় । এরপর রাজনৈতিক কারণে ১৯৮২ সালে এটি আবার বন্ধও করে দেয়া হয় । পরবর্তীতে ১৯৯২ সালের ১৫ অগাষ্ট ডাঃ হাবিবুর রহমান আনছারীর তত্বাবধানে এর কার্য্যক্রম আবার চালু হয় । আর এই ডাঃ হাবিবুর রহমানই ছিলেন এই মেডিকেল কলেজের প্রথম অধ্যক্ষ ।

এখানে ৫ বছর মেয়াদে এমবিবিএস কোর্সে প্রতি বছর ১৪০ এর অধিক ছাত্র-ছাত্রী ভর্তি করা হয় । এর মধ্যে সার্ক ভুক্ত দেশ সমূহের জন্য কিছু আসন সংরক্ষিত থাকে । বর্তমানে এখানে প্রায় ৯০০ জন এর মত ছাত্র ছাত্রী এবং প্রায় ১০০০ জন রোগীকে নিয়মিত চিকিৎসা সেবা প্রদান করে আসছে প্রতিষ্ঠানটি । এর বর্তমান অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডাঃ মহসিন উজ জামান চৌধুরী ।

ইংরেজিতেঃ Comilla Medical College Hospital (CMCH) .

ধরণঃ সরকারি মেডিকেল কলেজ ।

অবস্থানঃ কুমিল্লা জেলার কুচাইতলী গ্রামে অবস্থিত ।

 

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ এর সংক্ষিপ্ত ইতিহাসঃ

বৃহত্তর কুমিল্লা অঞ্চলের জনসাধারণের উন্নত চিকিৎসার জন্য ১৯৭৯ সালের ২৮শে মে তৎকালীন প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান এর সময় যাত্রা শুরু করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজটি । এরপর রাজনৈতীক টানাপোড়েনে পড়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি । যার ফলে এটি বন্ধ ঘোষনা করা হয় । এরপর ১৯৯২ সালে এর কার্যক্রম পুনরায় চালু হয় । প্রথম দিকে মাত্র দুটি বিভাগ নিয়ে এটি তার যাত্রা শুরু করে তখন এর ছাত্র ছাত্রী সংখ্যা ছিল মাত্র ৫০ জন এবং শিক্ষক ছিলেন ১১ জন । আর এর প্রথম অধ্যক্ষ ছিলেন প্রফেসর হাবিবুর রহমান আনসারী ।

 

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ এর ক্যাম্পাসের সংক্ষিপ্ত বিবরণঃ

শুরুতে কুমিল্লা মেডিকেল একটি মাত্র দোতলা ভবন নিয়ে এর যাত্রা শুরু করে । তখন না ছিল প্রত্যেক বিভাগের জন্য আলাদা কোনো ক্লাস রুম, ল্যাবরেটরি অথবা হোস্টেল ব্যবস্থা । সময়ের সাথে সাথে বলা যায় আমুল পরিবর্তন হয়েছে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের । এখন এর নিজস্ব ভূমিতে পূর্বের সেই দোতলা ভবন কে পাঁচ তলায় উন্নিত করা হয়েছে । ছাত্র ছাত্রীদের জন্য উন্নত মানের ল্যাব, অডিটোরিয়াম, লাইব্রেরী, হোস্টেল প্রায় সকল কিছুই করা হয়েছে এবং এর উন্নয় এখনো চলছে ।

এখানে প্রতি বছর ১৪০ জন করে ছাত্র ছাত্রী ভর্তি লাভের সুযোগ পায় আর সব মিলিয়ে এর ছাত্র সংখ্যা প্রায় ৯০০ জন । এছারাও এখানে ৫০০ সয্যা বিশিষ্ট একটি হাসপাতাল বিভাগ রয়েছে । যেখানে বৃহত্তর কুমিল্লা এবং নোয়াখালি অঞ্চলের মানুষ প্রতিনিয়ত চিকিৎসা সেবা নিয়ে যাচ্ছে ।

 

 

কুমিল্লা মেডিকেল এর অনুষদ ও বিভাগঃ

শুরুতে এখানে মাত্র দুটি বিভাগ চালু থাকলেও বর্তমানে এখানে চিকিৎসা বিজ্ঞানের প্রায় সব শাখাই চালু আছে এবং নিয়মিত

পাঠদান করা হচ্ছে । এছারা ২০১১সাল থেকে স্নাতকোত্তর কোর্স  চালু করা হয়েছে ।

 

সবশেষে কিছু কথাঃ

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ শুরু থেকে প্রচুর চড়াই উৎরাই পারি দিয়ে আজকের এই অবস্থানে এসেছে । আমাদের প্রত্যাশা থাকবে

এটি তার পরবর্তী সকল বাধা অতিক্রম করে স্বমহীমায় এগিয়ে যাবে । কারণ এর উপর নির্ভর করে আছে কুমিল্লা অঞ্চলের

মানুষের চিকিৎসা সেবা ।

 

আরো বিস্তারিত তথ্য জানার জন্য সকলের উদ্দেশ্যে নিচে কলেজের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট উইকিপেডিয়া  লিংক দিয়ে দিলাম ।

ওয়েবসাইট লিংক ।

উইকিপেডিয়া লিংক ।